কুষ্টিয়ায় কলেজ ছাত্রীর রহস্যজনক আত্মহত্যা, নেপথ্যে কে ?

অপরাধ ও দুর্নীতি শিক্ষাঙ্গন

আইসিটিনিউজ বিডি২৪: খন্দকার সাদিকুল আলম,কুষ্টিয়া প্রতিনিধি: কুষ্টিয়ার পৌর গোরস্থান এলাকায় এডভোকেট হারেজ উদ্দিনের বাড়িতে তাসনিহা তাহরিন তমা (২২) নামে এক কলেজ ছাত্রী আত্মহত্যা করেছে সে হারেজ উদ্দিনের বাড়িতে  একটি রুমে   ভাড়া থাকতো। মেয়েটি গতকাল রাতে তার নিজ শয়ন কক্ষে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে জানা যায়। ঘটনাক্রমে আরো জানা যায় তমা রাতে আনুমানিক সাড়ে বারোটার দিকে নিজ গলায় ওড়না পেচিয়ে আত্মহত্যা করে।

এসময় তার প্রেমিক খাইরুর রহমান তার মোবাইল ফোনে অনেকবার ফোন দিলে ফোন না ধরায় ঐ বাড়িতে যায় এবং গ্রিল কেটে ঘরের সিলিং থেকে ওড়না কেটে তাকে উদ্ধার করে। কিন্ত সন্দেহের বিষয় এটাই যে মেয়েটির লাশ উদ্ধারের সময় ঐ ঘরে মেয়েটির কথিত প্রেমিক খাইরুর রহমান ও নিহত তমার পাশের রুমের মিম ছাড়া অন্য কেউ ছিলো না। এমনকি তারা কাউকে ডাকচিৎকারও করেনি। কথিত প্রেমিক খাইরুর রহমান কুমারখালি উপজেলার দাঁড়িকগ্রামের আবু-হানিফের ছেলে। সে কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর পরীক্ষা দিয়েছে। পরে কুষ্টিয়া সদর হাসপাতাল আনার পরে কর্তব্যরত চিকিৎসক তমাকে মৃত ঘোষণা করেন। এর আগে মেয়েটি আনুমানিক রাত সাড়ে এগার টায় মোবাইলে তার পরিবারের লোকজনের সাথে যোগাযোগ করে বলে তার পরিবার জানায়।

তমা কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার তারাগুনিয়া গঙ্গারামপুর গ্রামের  তাসিকুল ইসলামের মেয়ে, সে কুষ্টিয়া সরকারি কলেজে ব্যাবস্থাপনা বিভাগের অনার্স ১ম বর্ষের ছাত্রী। ঘটনাটি আসলেই আত্মহত্যা না হত্যা এ বিষয়ে কুষ্টিয়া জেলা পুলিশ সুপারের দৃষ্টি আকর্ষণ ও সঠিক তদন্তের দাবি জানিয়েছে স্থানীয় এলাকাবাসী

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *